Agaminews
Dr. Neem Hakim

শিশু উন্নয়ন কেন্দ্র থেকে পালিয়ে যাওয়া ৮ জনের মধ্যে ৬ জনকে উদ্ধার- তদন্ত কমিটি গঠন


বার্তাকক্ষ প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ৯, ২০২০, ৩:১৩ অপরাহ্ন /
শিশু উন্নয়ন কেন্দ্র থেকে পালিয়ে যাওয়া ৮ জনের মধ্যে ৬ জনকে উদ্ধার- তদন্ত কমিটি গঠন

স্বীকৃতি বিশ্বাস, যশোরপ্রতিনিধি।

বাংলাদেশের শিশু আইন ২০১৩ অনুযায়ী আইনের সাথে সংঘর্ষে জড়িত বা সংস্পর্শে আসা শিশু বা অভিভাবক কর্তৃক প্রেরীত শিশুদের উন্নয়ন ও স্বাভাবিক জীবনে একীভূত করার লক্ষ্যে শিশু বা Adolescent (কিশোর/কিশোরী) উন্নয়ন কেন্দ্র পরিচারিত হচ্ছে। উন্নয়ন কেন্দ্রসমূহে স্বীকৃত পদ্ধতিতে আইনের সংস্পর্শে আসা শিশু ও অভিভাবক কর্তৃক প্রেরীত শিশুদের কেইস ওয়ার্ক, গাইডেন্স, কাউন্সেলিং এর মাধ্যমে বিনেদোন,জীবন দক্ষতা,শারীরিক মানসিকতার উন্নয়ন, ইত্যাদি স্বীকৃত পদ্ধতিতে রক্ষণাবেক্ষণ, ভরণপোষন, প্রশিক্ষণ, দক্ষতা উন্নয়ন করে কর্মমুখী ও উৎপাদনশীল নাগরিক হিসেবে সমাজে পুনর্বাসিত করার জন্য আইনানুযায়ীব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়।

বাংলাদেশে তিনটি শিশু উন্নয়ন আছে।এখানে ৬০০ টি আসন আছে। তিনটি শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রের একটি যশোর সদর উপজেলার পুলেরহাটে অবস্থিত।পুলের হাটের শিশু উন্নয়ন কেন্দ্র (বালক) থেকে গত রবিবার দিবাগতে নিরাপত্তা চৌকির পিছনের শৌচাগারের জানালা ভেঙে ৮ জন কিশোরপালিয়ে যেতে সমার্থ হয়।পালিয়ে যাওয়া কিশোরদের মধ্যে হত্যা মামলার আসামি দুজন এবং হত্যা মামলায় সাজাপ্রাপ্ত এক আসামি রয়েছে।পালিয়ে যাওয়া কিশোরদের বাড়ি নড়াইল, গোপালগঞ্জ ও বরিশালের ১ জন করে,খুলনার ২ জন যশোরের ৩ জন। তাদের বয়স ১৪ থেকে ১৭ বছরের মধ্যে। পালিয়ে যাওয়া ৮ জন কিশোরের মধ্যে গতকাল মঙ্গল বার পর্যন্ত ৬ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। শিশু উন্নয়ন কেন্দ্র কর্তৃপক্ষ গত ২ দিন যশোর, খুলনা ও নড়াইল থেকে তাদের উদ্ধার করে তাদের শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রে ফিরিয়ে আনা হয়েছে। এ ঘটনায় তদন্তের জন্য ৩ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়েছে এবং তদন্ত কমিটিকে ৩ দিনের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিল করতে বলা হয়েছে।

 

কেন্দ্রের তত্ত্বাবধায়ক জাকির হোসেন বলেন, পালিয়ে যাওয়া কিশোরদের মধ্যে যশোরের ৩ জন এবং খুলনার ২ জন এবং নড়াইলের ১ জন আত্মীয়ের বাড়ি আশ্রয় নেয়। পরিবারের সহযোগীতায় সোমবার ২ জন এবং গতকাল মঙ্গলবার ৪ জনকে উদ্ধার করে ফিরিয়ে আনা হয়েছে এবং অন্য ২ জনকে উদ্ধারের তৎপরতা চলছে।

যশোর জেলা সমাজ সেবা কার্যালয়ের পরিচালক অসিত কুমার সাহা বলেন, ৮ কিশোর পালিয়ে যাওয়ার ঘটনা তদন্তে জেলা সমাজ সেবা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক সাইফুল ইসলামসহ ৩ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে এবং তদন্ত প্রতিবেদন আগামী ৩ দিনের মধ্যে দিতে বলা হয়েছে।