Agaminews
Dr. Neem Hakim

হাজী সেলিমের ‘অবৈধ সম্পদের’ খোঁজে দুদক!


Khoborer প্রকাশের সময় : অক্টোবর ২৯, ২০২০, ৫:২১ অপরাহ্ন /
হাজী সেলিমের ‘অবৈধ সম্পদের’ খোঁজে দুদক!

ঢাকাঃ সরকারি কর্মকর্তাকে মারধরের ঘটনায় ঢাকা ৭ আসনের সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের ছেলে ও স্থানীয় কাউন্সিলর ইরফান সেলিমকে দেড় বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এবার হাজী সেলিমের আয় বর্হিভূত ‘অবৈধ’ সম্পদের সন্ধানে নামছে দর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।
আজ বুধবার (২৮ অক্টোবর) ‍দুপুরে রাজধানীর সেগুন বাগিচায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে কমিশনার মো. মোজাম্মেল হক খান সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।
 দুদক কমিশনার জানান, সংসদ সদস্য হাজী সেলিম ও তার ছেলে ইরফান সেলিমের সম্পদ নিয়ে গণমাধ্যমে আসা তথ্য খতিয়ে দেখছে দুদক। তাদের অর্জিত সম্পদগুলো দুদকের তফসিলভুক্ত হলে অপরাধ বলে গণ্য হবে। আইন অনুযায়ী অনুসন্ধান কার্যক্রম শুরু হবে।
দুদকের এই কমিশনার বলেন, হাজী সেলিম ও তার ছেলে ইরফান সেলিমের বিষয়ে আমরা গণমাধ্যমে দেখেছি। এতে অবৈধ সম্পদের সংশ্লিষ্টতা আছে কি না তা পরিষ্কার নয়। তাদের সম্পদগুলো অবৈধ হলে দুদক তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিবে।
উল্লেখ্য, গত (২৫ অক্টোবর) রাতে রাজধানীর কলাবাগান সিগনালে এমপি হাজী মো. সেলিমের ‘সংসদ সদস্য’ লেখা সরকারি গাড়ি থেকে নেমে নৌবাহিনীর কর্মকর্তা ওয়াসিফ আহমেদ খানকে মারধর করেন ডিএসসিসি ৩০ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর ইরফান সেলিম।
এ ঘটনায় সে রাতেই মামলা দায়েরের পর গত সোমবার (২৬অক্টোম্বর) পুরান ঢাকায় তার বাসায় অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযানে ৩৮টি ওয়াকিটকি, বিদেশি মদও অস্ত্র উদ্ধার করে র‌্যাব। ইরফানকে ১৮ মাস ও তার দেহরক্ষী মো. জাহিদকে ছয় মাস কারাদণ্ড দেন র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত।
গত ফেব্রুয়ারিতে অনুষ্ঠিত সিটি করপোরেশন নির্বাচনে দলের বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে ৩০ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীকে হারিয়ে জয়ী হন ইরফান। বিদেশে লেখাপড়া করে আসা ইরফান বাবার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান মদিনা গ্রুপের পরিচালকদেরও একজন।