সিএমপির নির্দেশে চট্টগ্রামে কিশোর গ্যাংয়ের তথ্য নেবেন ১৬ থানার ১৪৫ পুলিশ কর্মকর্তা গডফাদারদের

আবদুল্লাহ আল হাদীআবদুল্লাহ আল হাদী
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৫:৩৩ PM, ০২ অক্টোবর ২০২০

স্টাফ রিপোর্টার : চট্টগ্রাম নগরীতে কিশোর গ্যাংয়ের দৌরাত্ম্যে এবার স্বয়ং নড়েচড়ে বসেছেন চট্টগ্রাম নগর পুলিশের কমিশনার হিসেবে যোগ দেওয়া সালেহ মোহাম্মদ তানভীর। রীতিমতো ঘোষণা দিয়ে কিশোর গ্যাং ও তাদের গডফাদারদের সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ করার নির্দেশ দিয়েছেন নগর পুলিশের এই শীর্ষ কর্মকর্তা।

শনিবার (৩ অক্টোবর) বিকাল ৪টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত নগরীর ১৬টি থানার ১৪৫ জন বিট কর্মকর্তাকে তাদের বিটের নির্ধারিত এলাকায় অবস্থান গ্রহণ করে কিশোর গ্যাং ও তাদের মদদদাতা (গডফাদার) সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ করার নির্দেশ দেন সিএমপি কমিশনার।

বৃহস্পতিবার (১ অক্টোবর) রাতে তার ফেসবুক পেইজে দেওয় এক পোস্টে সঠিক তথ্য দিয়ে কোমলমতি কিশোরদেরকে সঠিক ও আলোর পথে ফিরিয়ে আনায় সহায়তার আহ্বান জানিয়েছেন নগরবাসীর প্রতি। এর পাশাপাশি কারও ব্যাপারে মিথ্যা তথ্য দিয়ে অযথা হয়রানি না করারও আহ্বান জানান তিনি।

এর আগে ৭ সেপ্টেম্বর চট্টগ্রাম নগর পুলিশের শীর্ষ পদে যোগদানকালে সালেহ মোহাম্মদ তানভীর তার মিট দ্য প্রেস অনুষ্ঠানেও কিশোর গ্যাং কালচার নিয়ে আলোচনা করেন। ওই সময় তিনি মাদক ও সন্ত্রাসের মতো কিশোর গ্যাংয়ের বিরুদ্ধেও তার জিরো টলারেন্স নীতির কথা উল্লেখ করেন।

আরও খবর
ভিডিও/ চট্টগ্রামে ছেলেমেয়ের ‘কিশোর গ্যাং’ ঘরে ঢুকে পিটিয়ে এলো তরুণীকে

চট্টগ্রাম নগরীজুড়ে অব্যাহতভাবে কিশোর অপরাধীর সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় চট্টগ্রাম প্রতিদিনসহ বিভিন্ন গণমাধ্যমে কিশোর গ্যাং নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ হয়। নগরীতে কিশোর গ্যাং কালচারের খপ্পরে পড়ে উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি নুরুল আলম চৌধুরীর নাতি আদনানসহ একাধিক হত্যাকাণ্ডের ঘটনাও ঘটেছে।

আপনার মতামত লিখুন :