একজন শ্রমিক নেতার বিদায়

বার্তাকক্ষবার্তাকক্ষ
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৫:১৯ PM, ২০ অগাস্ট ২০২০

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ

মোঃ হারুন মৃর্ধা সত্যিকারের একজন মজলুম জননেতা। শ্রমিকদের ঐক্যবদ্ধ করার জন্য তার আপ্রাণ প্রচেষ্টা নজর কেড়েছে সকলের। বয়স্ক লোক হয়েও এত বেশি সাংগঠনিক তৎপরতা আমাদেরকে অনুপ্রাণিত করেছে সব সময়।
ইসলামী আন্দোলন যেন তার হৃদয়ের সাথে মিশে ছিল। ছোট থেকে বড় রাজাপুরে এমন কোনো প্রোগ্রাম নেই যেখানে তার সরব উপস্থিতি ছিলেনা। শ্রমিকদের ঐক্যবদ্ধ করতে তিনি ইউনিয়নে ও ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে প্রোগ্রাম করেছেন। নির্বাচনের সময় দেখেছি এক মুহূর্তের জন্যও তিনি বিশ্রাম নেননি। সব সময় মাথার ভিতরে একটাই ভাবনা কিভাবে হাতপাখার একটি ভোট বৃদ্ধি করা যায়।
বৃদ্ধ বয়সেও একটি সংগঠনের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেছেন খুব দক্ষতা ও সাংগঠনিক প্রজ্ঞার সাথে। সব সময় লক্ষ করেছি তার নেতৃত্বের ভিতরে কোনো বিশৃঙ্খলা ছিলনা। সংগঠনকে তিনি হৃদয়ে ধারণ করতেন বলেই সকল মানুষের মাঝে তিনি ছিলেন জনপ্রিয় এক নেতা।
মৃত্যুর পর অনেককে বলতে শুনেছি তিনি করোণায় ইন্তেকাল করেছেন। কিন্তু কই? মৃত্যুর সংবাদ শুনে চারদিক থেকে হাজার হাজার মানুষের ঢল! জানাযায় বন্যা ও পানিকে উপেক্ষা করে এত মানুষের উপস্থিতি প্রমাণ করে মানুষের মনে তার ভালবাসার গভীরতা কত বেশি ছিল।
মহান আল্লাহর কাছে ফরিয়াদ, আল্লাহ পাক তার জীবনের সকল ভুল ত্রুটি ক্ষমা করে তাকে জান্নাতের স্থায়ী বাসিন্দা হিসেবে কবুল করে নিন।

মৃত্যু তারিখঃ ১৯ আগস্ট ২০২০, সকাল ১০ ঘটিকা।

আপনার মতামত লিখুন :